কবিরাজপুর পুলিশ ফাড়ি ঘেরাও

Kabirajpur-College

মাদারীপুরের রাজৈর উপজেলার কবিরাজপুর ইউনিয়নের ছইফইদ্দিন ডিগ্রী কলেজের শিক্ষার্থীদের সাথে কবিরাজপুর ফাঁড়ির এসআই জাহাঙ্গীর হোসেনের বিরুদ্ধে অশ্লালীন আচরণের অভিযোগ এনে এর প্রতিবাদে বুধবার ছাত্র-ছাত্রীরা বিক্ষোভ মিছিল করে নৌ-পুলিশ ফাঁড়ি ঘেরাও করে।

কলেজ ও শিক্ষার্থী সূত্রে জানা গেছে, বুধবার সকাল সাড়ে নয়টার দিকে সন্দেহজনকভাবে ঘোরাফেরার অভিযোগ এনে কবিরাজপুর নৌ-পুলিশ ফাড়ির ইনচার্জ মো. জাহাঙ্গীর হোসেন সকলের সামনে কবিরাজপুর ছইফইদ্দিন ডিগ্রী কলেজের ইউনিফর্ম পরিহিত ছাত্র কাসিবের দেহ তল্লাশী করে। এ সময় এ ছাত্রের শার্ট খুলে এবং প্যান্ট ছিড়ে ফেলে ঐ এসআই জাহাঙ্গীর।

এ খবর ছড়িয়ে পড়লে কলেজের ছাত্র-ছাত্রীরা ক্ষোভে ফেটে পড়ে এবং বিক্ষোভ মিছিল করে পুলিশ ফাঁড়ি ঘেরাও করে।

খবর পেয়ে সহকারী পুলিশ সুপার মো. মনিরুজ্জামান ফকির ও রাজৈর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা মো. আনোয়ার হোসেন ভুঞা ঘটনাস্থলে গিয়ে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনে।

এ সময় তাৎক্ষণিকভাবে স্থানীয় গণ্যমান্য ব্যক্তিবর্গদের নিয়ে সভা করে। সভায় ছাত্র ও এলাকাবাসী এসআই জাহাঙ্গীর হোসেনর বিরুদ্ধে ছাত্র-ছাত্রীদের সাথে অশ্লালীন আচরণসহ নানাবিধ অভিযোগ করে। এ সময় কর্মকর্তাদ্বয় সবকিছুর সমাধানের আশ^াস দিলে পরিস্থিতি শান্ত হয়।

কবিরাজপুর ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান আলহাজ¦ টিপু সুলতান মাতুব্বর জানান, ইনচার্জ মো. জাহাঙ্গীর হোসেনের আচরণ শিষ্টাচার বহির্ভুত। এর আগেও তার বিরুদ্ধে আমার কাছে অনেক অভিযোগ এসেছে।

এ ব্যাপারে কবিরাজপুর নৌপুলিশ ফাঁড়ীর ইনচার্জ জাহাঙ্গীর হোসেন জানান, ঐ ছাত্রের কাছে মাদক রয়েছে এমন সন্দেহ হওয়ায় তার দেহ তল্লাশী করা হয়েছিল।

রাজৈর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা মো. আনোয়ার হোসেন ভুঞা ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে জানান, আলোচনার মাধ্যমে সমস্যার সমধান করা হয়েছে।

Leave a Reply